জামায়াত-শিবিরের রাজনীতি নিষিদ্ধ ও যুদ্ধাপরাধের বিচার তরান্বিত করার দাবি জানিয়েছে নিউপোর্ট যুবলীগ

নভেম্বর ১৪, ২০১২, ১০:৪৪ অপরাহ্ণ 👉 এই সংবাদটি ৪৭ বার পড়া হয়েছে

Loading...

স্বাধীনতা বিরোধী জামায়াত-শিবিরের রাজনীতি নিষিদ্ধ ও যুদ্ধাপরাধের বিচার তরান্বিত করার দাবি জানিয়েছে নিউপোর্ট যুবলীগ। যুবলীগের ৪০তম প্রতিষ্টা বার্ষিকীর আলোচনা সভায় বক্তারা এ দাবি জানান। বক্তারা বলেন, ‘১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধ চলাকালীন সময় স্বাধীনতা বিরোধী শক্তি যেভাবে পাকিস্তানী হানাদারদের সাথে নিয়ে দেশব্যাপী হত্যা-ধর্ষন ও অগ্নি সংযোগের মাধ্যমে স্বাধীনতার বিরোধীতা করেছিল, ৪২ বছর পর আবার ঠিক একই কায়দায় আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর উপর হামলা, দেশের বিভিন্ন স্থানে অগ্নি সংযোগ ও লুটপাট চালিয়ে যুদ্ধাপরাধের বিচারকে বাধাগ্রস্থ করতে চাইছে। জামায়াত-শিবিরের আজকের আচরন ও ৭১এর আচরনের মাঝে কোন পার্থক্য নেই। যারা যুদ্ধাপরাধের বিচারকে বাধা গ্রস্থ করতে চাইছে এদেরকেও নব্য যুদ্ধাপরাধী হিসেবে চিহ্নিত করে বিচারের সম্মুখীন করতে হবে। স্বাধীনতা বিরোধী শক্তি যুদ্ধাপরাধের বিচারকে বানচাল করতে দেশে এবং দেশের বাইরে যুদ্ধাপরাধের বিচারকে বানচাল করতে দেশে এবং দেশের বাইরে যুদ্ধাপরাধ ট্রাইবুন্যাল নিয়ে অপপ্রচার চালিয়ে যাচ্ছে। এই সব অপপ্রচারের বিরুদ্ধে যুবলীগ সহ স্বাধীনতার পক্ষের শক্তিকে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহবান জানান বক্তারা। গত ১৩ নভেম্বর মধ্যরাতে নিউপোর্টের একটি রেষ্টুরেন্টে নিউপোর্ট যুবলীগের সভাপতি মুহিবুর রহমান মুহিবের সভাপতিত্বে ও সাধারন সম্পাদক ফখরুল ইসলামের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীর আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামীলীগ নিউপোর্ট শাখার সভাপতি শেখ তাহির উল্লাহ। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন নিউপোর্ট আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক আব্দুল হান্নান। সভায় দেশের চলমান পরিস্থিতি ও জামায়াত-শিবিরের রাজনীতি বন্ধের দাবি জানিয়ে বক্তব্য রাখেন প্রজন্ম-৭১ নিউপোর্ট শাখার সভাপতি বেলায়েত হোসেন খান, নিউপোর্ট যুবলীগ নেতা জয়নাল মিয়া, আব্দুর রউফ, বাবলু মিয়া, আনহার মিয়া, রুহুল আমিন, সিতাব আলী, কবীর আহমেদ, সাজ্জাদ মিয়া, কামিল আহমদ, কামাল খান প্রমুখ। প্রেস বিজ্ঞপ্তি।

loading...
error: এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা আংশিক নকল করে বা ছবি অনুমতি ছাড়া অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি